সিএনজি শ্রমিকদের সাত বছরের হিসাব নিয়ে সাবেক সভাপতি’র টালবাহানা

প্রকাশিত: ৬:৩৮ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ২৭, ২০২১

সিএনজি শ্রমিকদের সাত বছরের হিসাব নিয়ে সাবেক সভাপতি’র টালবাহানা

 

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ সিলেট জেলা অটোরিকশা শ্রমিক ইউনিয়ন রেজিষ্ট্রেশন নং চট্ট ৭০৭ এর অন্তর্ভুক্ত হুমায়ুন রশিদ চত্বর উপকমিটির সদ্যবিদায়ী সভাপতি মোঃ মানিক মিয়া এবং তার কমিটির কিছু কথিত শ্রমিক নেতা নামধারী লোকজন প্রায় অর্ধ যুগের বেশি সময় ধরে পোস্ট/পদবী আঁকড়ে ধরে নিরীহ সিএনজি অটোরিকশা শ্রমিক ড্রাইভারদের সেবা প্রদানের নামে শোষণ ও নির্যাতন করে আসছিলেন। অবশেষে কিছু দিন পূর্বে সিলেট জেলা অটোরিকশা শ্রমিক ইউনিয়ন ৭০৭ এর সভাপতির নির্দেশনা অনুযায়ী হুমায়ুন রশিদ চত্বর উপকমিটির বাতিল ঘোষণা করা হয়। কিন্তু দুঃখজনক হলেও সত্যি যে, শ্রমিক ড্রাইভারদের দীর্ঘ সাত বছরের হিসাব ও কষ্টের জমানো টাকার কোন হদিস নেই, এ যেন কাজীর গরু খাতায় আছে, গোয়ালে নেই।
আরো পরিতাপের বিষয় হল হুমায়ুন চত্বর ৭০৭ শাখার সাবেক সভাপতি দীর্ঘ ৭ বৎসর ক্ষমতার জোরে শ্রমিকদের জুলুম নির্যাতন করে, এখনও তার পেটের ক্ষুধা মেটেনি আবারও শুরু করেছেন তালবাহানা। ফোন করে এবং মৌখিক ভাবে শ্রমিকদের হুমকি ধামকি প্রদান করে আসছেন অহরহ , এমনকি গত ২২/০২/২০২১ ইং হুমায়ুন রশিদ চত্বর উপকমিটির নির্যাতিত ও নিরীহ শ্রমিকদের আশ্রয়দাতা বরইকান্দি ইউনিয়ন এর সাবেক ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান ও রংধনু সমাজ কল্যাণ সংস্থার উপদেষ্ঠা কমিটির সিনিয়র সদস্য শানর মিয়া’র কাছে বিরাট অংকের টাকা নিয়ে আসেন সাবেক সভাপতি মানিক মিয়ার পক্ষে, উনার নিকটতম বন্ধু প্রয়াত সাবেক মেয়র কামরান সাহেবের জামাই মো: কবির মিয়া এবং মাহমদ আলী নিজাম। উনারা অনেক চেষ্টা করেও
সানর মিয়াকে টাকার বিনিময়ে উনার শততা ও নীতি আদর্শ থেকে নড়াতে পারেননি। এই তালবাহানা করার কারন একটাই দির্ঘ ৭ বৎসর শ্রমিকদের কষ্টের জমানো টাকার হিসাব যাতে না দিতে হয়,সেই তালবাহানা করছেন সাবেক সভাপতি মোঃ মানিক মিয়া।
এখন নিরীহ শ্রমিকদের একটাই দাবি,অচিরেই তাদের দীর্ঘ সাত বৎসরের হিসাব দিতে হবে
অন্যতায় নির্যাতিত সিএনজি অটোরিকশা শ্রমিক ড্রাইভারদের আশ্রয় দাতা এবং তাদের সুখ দুঃখের ভাগিদার সানর মিয়া ও এলাকার মুরুব্বিদের নিয়ে নিরীহ সিএনজি অটোরিকশা শ্রমিকরা আবারো কঠোরভাবে আন্দোলন নিয়ে মাঠে নামবে। প্রয়োজন হলে মানিক মিয়া এর বিপক্ষে মামলা দায়ের করবে।

এ ব্যাপারে সাবেক চেয়ারম্যান সানর মিয়া একটি জরুরী সভা ডেকে মানিক মিয়াকে হুশিয়ার করেন, বলেন যে, এই নিরিহ শ্রমিকদের জন্য তাদের শেষ রক্ত বিন্দু দিয়েও লড়াই করে যাবেন।

এই সংবাদটি 104 বার পঠিত হয়েছে

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ